মুন্সীগঞ্জে বিএনপি-পুলিশ সংঘর্ষের ঘটনায় ২৫ জন আটক

অনলাইন সীমান্তবাণী ডেস্ক : মুন্সীগঞ্জ সদরের মুক্তারপুরে বুধবার পুলিশের সঙ্গে বিএনপি নেতাকর্মীদের সংঘর্ষে অন্তত ৫০ জন আহত

মুন্সীগঞ্জ সদরের মুক্তারপুরে পুলিশের সঙ্গে বিএনপি নেতা-কর্মীদের সংঘর্ষের ঘটনায় ২৫ জনকে আটক করা হয়েছে। গতরাতে মুক্তারপুর ও আশপাশের এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করে পুলিশ।

বিষয়টি নিশ্চিত করে বৃহস্পতিবার দুপুরে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সুমন দেব জানান, গতকালের ঘটনাটি পূর্ব পরিকল্পিত। ওই ঘটনায় রাতে অভিযান চালিয়ে ২৫ জনকে আটক করা হয়েছে। এ ঘটনায় মামলার প্রস্তুতি চলছে। আটককৃতরা ঘটনার সঙ্গে জড়িত কিনা তা যাচাই-বাছাই করা হচ্ছে।

এদিকে মুন্সীগঞ্জের পঞ্চসারের মিরেরশরাই এলাকায় জেলা বিএনপির আহ্বায়ক আব্দুল হাইয়ের ভাগনে বিএনপি নেতা মোহাম্মদ নিজামউদ্দিনের সুতার কারখানা ও কয়েকটি বসতঘর আগুনে পুড়ে গেছে। বুধবার গভীর রাতে এই ঘটনা ঘটে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানান, রাত ২টার দিকে প্রথমে বিএনপি নেতার সুতার কারখানায় আগুন লাগে। পরে মুহূর্তের মধ্যে আগুনের লেলিহান শিখা আশপাশের বসতবাড়িতে ছড়িয়ে পড়ে। এতে কারখানার পাশে থাকা আরও পাঁচটি বসতঘর পুড়ে ছাই হয়ে যায়।

জেলা যুবদলের সাবেক যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মো. নিজামের অভিযোগ, গভীর রাতে আওয়ামী লীগের প্রায় ৩০-৩৫ জনের একটি দল ‘জয় বাংলা’ স্লোগান দিয়ে ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে আগুন দেয়। এতে কয়েকটি বসতঘরেও আগুন লাগে। পরে ফায়ার সার্ভিসের একটি ইউনিট এসে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে।

আগুনের ঘটনায় পুলিশ সুপার বলেন, ‘আগুন লাগার বিষয়টি শুনেছি। অভিযোগ পেলে তদন্ত করে দেখা হবে এই ঘটনা পরিকল্পিত কি-না।’

উল্লেখ্য, বুধবার বিকেলে বিএনপির কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে মুন্সীগঞ্জের মুক্তারপুরে বিক্ষোভ মিছিলে পুলিশ ও দলটির নেতাকর্মীদের মধ্যে প্রায় ঘণ্টাব্যাপী সংঘর্ষ হয়। এতে ৩০ পুলিশ সদস্যসহ আহত হয়েছেন কমপক্ষে ৫০ জন।

Leave a Reply

Your email address will not be published.